• বৃহস্পতিবার, ২২ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০:০৬ পূর্বাহ্ন
  • Bengali Bengali English English
সংবাদ শিরোনাম
কানাডায় স্থায়ী হতে আসা বাংলাদেশিদের চাকরি না পাওয়ার হতাশা ভূমধ্যসাগরে নৌযানে অগ্নিকাণ্ডে মাদারীপুরের ৫ জনের মৃত্যু বাঙালির গৌরবের অমর একুশে ফেব্রুয়ারি আজ আর্থিক ও অবসর সুবিধা নির্দিষ্ট সময়ে প্রদানের রিটের রায় বৃহস্পতিবার কেন্দ্রের সব পরীক্ষার্থী ভুয়া, সচিবসহ ৫৮ জন আটক এলাকার উন্নয়নে প্রত্যেক সংসদ সদস্যরা পাবেন ২০ কোটি টাকা “আইন মেনে গ্রামীণের প্রতিষ্ঠানগুলোর নিয়ন্ত্রণ নেওয়া হয়েছে” অস্তিত্বের জন্য বৈশ্বিক তাপমাত্রা বৃদ্ধি সীমাবদ্ধ রাখতে হবে এমপিওভুক্ত শিক্ষকদের জন্য বড় সুখবর! আরও বড় হচ্ছে মন্ত্রিসভা: আলোচনায় যারা কারা পাচ্ছেন আওয়ামী লীগের সংরক্ষিত আসনের মনোনয়ন রমজানের পুরো মাস ছুটি থাকবে মাদ্রাসা রোজার শুরুতে চলবে স্কুল-কলেজের ক্লাস ড. ইউনূসের নির্দেশে ২৫ কোটি টাকা দেওয়া হয় সিবিএ নেতাদের চাঁদ দেখা গেছে, শবে বরাত ২৫ ফেব্রুয়ারি

নওগাঁয় অভ্যন্তরীণ বোরো ধান-চাল সংগ্রহের উদ্বোধন

প্রজন্মের আলো / ৫৩ শেয়ার
Update রবিবার, ৭ মে, ২০২৩

সাদেকুর রহমান বাঁধন:

নওগাঁয় অভ্যন্তরীণ বোরো ধান ও চাল সংগ্রহের উদ্বোধন করা হয়েছে। রবিবার রাজধানীর খাদ্যভবন থেকে অনলাইনে যুক্ত হয়ে নওগাঁসহ সারাদেশে এর উদ্বোধন করেন খাদ্যমন্ত্রী সাধন চন্দ্র মজুমদার এমপি। এসময় অনলাইনে যুক্ত হয়ে নওগাঁয় চলতি বোরো মৌসুমে ধানের উৎপাদন ও সংগ্রহ লক্ষ্যমাত্রা সম্পর্কে তথ্য তুলে ধরে বক্তব্য রাখেন নওগাঁর জেলা প্রশাসক খালিদ মেহেদী হাসান।

এসময় উপস্থিত ছিলেন সদর আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিষ্টার নিজাম উদ্দিন জলিল জনসহ কৃষি বিভাগের কর্মকর্তা, চাল কল মালিক গ্রুপ, আড়ৎদার ও ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দ এবং সাংবাদিকরা। জেলা খাদ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, চলতি মৌসুমে জেলায় ৩০ টাকা দরে ১ হাজার ৬৭৫ মেট্টিক টন ধান ও ৪৪ টাকা দরে ৬ হাজার ৭৬১ মেট্টিক টন সিদ্ধ চাল আগামী ৩১আগস্ট পর্যন্ত ক্রয় করা হবে।

উদ্বোধনে অনুষ্ঠানে খাদ্যমন্ত্রী বলেন, নওগাঁ ও হাওর অঞ্চলসহ সারাদেশে ধানের বাম্পার ফলন হয়েছে। কৃষককে লাভবান করার উদ্দেশ্যে প্রতি বছর সরাসরি কৃষকের কাছ থেকে ধান ক্রয় করে থাকে সরকার। পাশাপাশি দেশে খাদ্যশস্যের মজুত বাড়ানো ও বাজার দর নিয়ন্ত্রণে রাখতে প্রতি মৌসুমেই শস্য সংগ্রহ করা হয়। সেই লক্ষ্য বাস্তবায়নে প্রতিটি জেলা ও উপজেলা ক্রয় কমিটিকে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে।

সরকারি গুদামে ধান বিক্রির সময় কৃষকরা যেন কোনো ভাবেই হয়রানির শিকার না হন, সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে। কৃষকদের সম্মান করতে হবে। তারা আমাদের ভাই ও স্বজন। তবে মানের সঙ্গে কোনো আপস করা যাবে না। ভালোভাবে পরীক্ষা করেই ধান কিনতে হবে।


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরও সংবাদ

Categories